Home » Top 10 » বিশ্ব ইজতেমা প্রথম পর্বের আখেরি মোনাজাত আজ

বিশ্ব ইজতেমা প্রথম পর্বের আখেরি মোনাজাত আজ

দেশ-বিদেশের লাখ লাখ ধর্মপ্রাণ মুসল্লির অংশগ্রহণে তাবলীগের শীর্ষ মুরব্বিদের গুরুত্বপূর্ণ বয়ানের মধ্য দিয়ে গতকাল বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় দিন অতিবাহিত হয়েছে। ইজতেমার দ্বিতীয় দিন শনিবার গোটা টঙ্গী শহর পরিণত হয় এক জনসমুদ্রে 
। তুরাগ তীরে বিশ্ব ইজতেমায় আগত লাখ লাখ মুসল্লির পদভারে মুখরিত। আল্লাহু আকবার ধ্বনিতে টঙ্গীর আকাশ-বাতাস প্রকম্পিত। আজ রোববার বেলা সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর ১২টার মধ্যে যেকোনো সময় (জোহর নামাজের পূর্বে) বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ আখেরি মোনাজাত অনুষ্ঠিত হবে বলে আয়োজক সূত্রে জানা গেছে। চারদিন বিরতির পর আগামী ১৯শে জানুয়ারি শুক্রবার থেকে শুরু হবে ৫৩তম বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব।
দিল্লির শীর্ষ মুরব্বি মাওলানা সাদের অবর্তমানে আখেরি মোনাজাত কাকরাইল জামে মসজিদের পেশ ইমাম ও খতিব হাফেজ মাওলানা জোবায়ের আহমদ পরিচালনা করার কথা রয়েছে।

তাবলীগের ৬ উসুলের (মৌলিক বিষয়ে) উপর গতকাল বাদ ফজর কুয়েতের মাওলানা শায়েখ ইব্রাহিম রেপাই-এর বয়ানের মধ্য দিয়ে দ্বিতীয় দিনের বয়ান শুরু হয়। বাদ জোহর বয়ান করেন সুদানের মাওলানা ড. মো. জাহাদ। বাদ আছর বয়ান করেন বাংলাদেশের মাওলানা মো. নূর-উর-রহমান। বাদ মাগরিব বয়ান করেন মাওলানা মোহাম্মদ ফারুক। এবারও যৌতুক বিহীন বিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে হচ্ছে না বলে জানিয়েছেন বিশ্ব ইজতেমার শীর্ষ জিম্মাদার প্রকৌশলী মো. গিয়াস উদ্দিন। গতকাল ইজতেমা ময়দানে ১জন বিদেশিসহ ২ জন মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে এ পর্যন্ত ইজতেমায় ৩ জন মুসল্লি মারা গেছেন। বিশ্ব ইজতেমার লাখ লাখ মুসল্লির সঙ্গে দু’হাত তুলে আখেরি মোনাজাতে অংশ নিয়ে গোনা মাফ চাইতে এবং পরকালের শান্তি কামনায় শরিক হতে তাবলীগ অনুসারী দেশি-বিদেশি মুসল্লিরা ইজতেমায় আসছেন। এছাড়াও দেশের দূর-দূরান্ত থেকে ধর্মপ্রাণ মানুষেরা দলে দলে ইজতেমা স্থলে এসে যোগ দিচ্ছেন। 
তাবলীগের সূচনা: মাওলানা ইলিয়াস (র:) প্রবর্তীত তাবলীগের দাওয়াত দীর্ঘ পথ পরিক্রমায় সারা দুনিয়ায় পৌঁছে যাওয়ায় তাবলীগ অনুসারীদের সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পায়। তাবলীগ অনুসারী ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পাওয়ায় বার্ষিক ইজতেমায় আগতদের সংখ্যাও দিন দিন বৃদ্ধি পেয়ে আজকের এ অবস্থানে এসে পৌঁছেছেন। এখানের বিশাল ময়দানেও স্থান সংকুলান না হওয়ায় ২০১১ সাল থেকে দু’পর্বে বিশ্ব ইজতেমার ব্যবস্থা করা হয়। দু’পর্বেও সংকুলান না হওয়ায় ২০১৬ সাল থেকে চার ভাগে ভাগ করা হয়েছে। 
বিদেশিসহ ২ জনের মৃত্যু: বিশ্ব ইজতেমায় যোগ দিতে এসে নূরহান বিন আব্দুর রহমান (৫৫) নামে মালয়েশিয়ার এক নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। গত শুক্রবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে মারা যান তিনি। টঙ্গী সরকারি হাসপাতালের চিকিৎসক রেজাউল হক জানান, মালয়েশিয়ার নাগরিক নূরহান বিন আবদুর রহমান বিশ্ব ইজতেমায় বিদেশি নিবাসে অবস্থান করছিলেন। শুক্রবার রাতে নামাজের জন্য অজু করেন। হঠাৎ করে তিনি মাটিতে পড়ে যান। হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে হাসপাতালে নেয়ার আগেই তার মৃত্যু হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এছাড়া লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার চরবাইতা গ্রামের শামছুল হকের ছেলে মো. রফিকুল ইসলাম (৫৪) নামে একজনের মৃত্যু হয়েছে। রফিকুল ইসলাম শুক্রবার রাত ১১টার দিকে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন। তাকে টঙ্গী সরকারি হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। 
তাশকিলের কামরায় চিল্লাভুক্ত মুসল্লি- ইজতেমার প্যান্ডেলের উত্তর-পশ্চিমে তাশকিলের কামরা স্থাপন করা হয়েছে। বিভিন্ন খিত্তা থেকে বিভিন্ন মেয়াদে চিল্লায় অংশ গ্রহণেচ্ছু মুসল্লিদের এ কামরায় আনা হচ্ছে এবং তালিকাভুক্ত করা হচ্ছে। পরে কাকরাইলের মসজিদের তাবলিগী মুরব্বিদের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এলাকা ভাগ করে তাদের দেশের বিভিন্ন এলাকায় তাবলিগী কাজে পাঠনো হবে। 
যানবাহনে ভিড় ও যানজট: বিশ্ব ইজতেমা উপলক্ষে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক, টঙ্গী আশুলিয়া সড়ক ও টঙ্গী-কালীগঞ্জ সড়কসহ বিভিন্ন সড়ক দিয়ে চলাচলকারী যাত্রীবাহী সব যানবাহনে প্রচণ্ড ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। এ রাস্তাগুলোতে যানজট পরিলক্ষিত হচ্ছে। এ যানজট কখনো কখনো দীর্ঘ সময় চলে। 
হাট বাজার: ইজতেমা এলাকার হাট-বাজারগুলোতে নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্র প্রায় দ্বিগুণ মূল্যে বিক্রি হচ্ছে। যেমন মুরগির (ফার্ম) মূল্য ছিল ১২০ টাকা কেজি তা এখন ১৫০ টাকা, ১০ টাকার ধনেপাতা বিক্রি হচ্ছে ২০ টাকায়, শসা প্রতি কেজি ২০ টাকা বেশি, টমেটো প্রতি কেজি ১০/১৫ টাকা বেশি দরে বিক্রি হচ্ছে। 
বিদেশি মুসল্লিদের অংশগ্রহণ: ইজতেমার প্রথম পর্বে সৌদি আরব, জর্ডান, মিসর, ওমান, সংযুক্ত আরব-আমিরাত, কাতার, কানাডা, কম্বোডিয়া, ডেনমার্ক, ফিনল্যান্ড, জার্মানি, ইরান, জাপান, মাদাগাস্কার, মোজাম্বিক, নাইজেরিয়া, পানামা, সেনেগাল, দঃ আফ্রিকা, তাঞ্জানিয়া, রাশিয়া, আমেরিকা, জিম্বাবুয়ে, বেলজিয়াম, ক্যামেরুন, চীন, কমোরস, ফিজী, ফ্রান্স, ইন্দোনেশিয়া, মালয়েশিয়া, শ্রীলঙ্কা, নিউজিল্যান্ড, নরওয়ে, ফিলিপাইন, সিঙ্গাপুর, আফগানিস্তান, অস্ট্রেলিয়া, থাইল্যান্ড, কুয়েত, মরক্কো, কাতার, তিউনিসিয়া, ইয়েমেন, বাহরাইন, ইরিত্রিয়া, মৌরিতানিয়া, ভারত, দুবাইসহ বিশ্বের শতাধিক দেশের প্রায় ১০-১২ হাজার মুসল্লি ইজতেমায় অংশ নিয়েছেন। বিভিন্ন ভাষা-ভাষী ও মহাদেশ অনুসারে ইজতেমা ময়দানে বিদেশি মেহমানদের ভিন্ন ভিন্ন তাঁবু নির্মাণ করা হয়েছে। তবে আখেরি মোনাজাতে প্রায় ২০-২৫ হাজার বিদেশি মেহমান অংশগ্রহণ করবেন বলে প্রকৌশলী গিয়াস উদ্দিন নিশ্চিত করেছেন। 
আয়োজক কমিটির বক্তব্য: ইজতেমা আয়োজক কমিটির শীর্ষ মুরব্বি প্রকৌশলী মো. গিয়াস উদ্দিন বলেন, ময়দানে আইনশৃঙ্খলা বজায় থাকায় পরিচ্ছন্নভাবে বিশ্ব ইজতেমা পালিত হচ্ছে। ময়দানে আগত দেশ-বিদেশের লাখ লাখ মুসল্লি স্বচ্ছন্দে ইবাদত বন্দেগিতে মশগুল রয়েছেন। আজ ১১টা থেকে ১২টার মধ্যে আখেরি মোনাজাত অনুষ্ঠিত হবে। 
পোস্টার ব্যানার: বিশ্ব ইজতেমা উপলক্ষে টঙ্গী, গাজীপুর, উত্তরা ও তুরাগ থানা এলাকার ছোট-বড় সকল রাস্তা, ফুটওভারব্রিজ রাস্তার দ্বারে দালান কোঠা ও দোকানপাট এবং গাছে গাছে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও সংগঠনসহ পণ্য ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের পোস্টার-ব্যানারে ছেয়ে আছে। রাজনৈতিক নেতাকর্মী ও বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে বিশ্ব ইজতেমার সফলতা কামনা করে পোস্টার-ব্যানার টাঙানো হচ্ছে। বেশ কিছু তোরণ নির্মাণ করে মুসল্লিদের স্বাগত জানানো হয়েছে। 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *