Home » বিনোদন » অন্যান্য বিনোদন » আমার স্বামী আছে, কেউ যেন আমাকে বিরক্ত না করে

আমার স্বামী আছে, কেউ যেন আমাকে বিরক্ত না করে

‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ এর ওপর নাম বিতর্ক বলা চলে। কারণ একের পর এক প্রতিযোগী সম্পর্কে নানা আলোচনায় ডুবে আছে সকলে। সংশোধনী ফলাফলে যৌথভাবে দ্বিতীয় রানারআপ হয়েছেন রুকাইয়া জাহান চমক। ফলাফল ঘোষণার পর জানা গেলো তিনিও বিবাহিত। তবে চমকের দাবি, ছেলেটি তার স্বামী নন, প্রেমিক।

২০১৪ সালের নভেম্বর মাসে চমকের বিয়ে হয়। তার স্বামীর নাম খান এইচ কবির। বিয়ে হওয়ার পর ২০১৫ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি চমকের স্বামী ফেসবুকে ম্যারিড ইউথ চমক দেন। পরের বছর তারা স্বামী-স্ত্রী প্রথম বর্ষপূর্তিও পালন করেন।

এ প্রসঙ্গে চমক বলেন, ‘ছেলেটি আমার স্বামী নয়, প্রেমিক। সে নিজেও স্ট্যাটাসে জানিয়েছে, আমি তার প্রেমিকা। কেউ কি আমাদের বিয়ের ছবি, কাবিননামার ছবি কোথাও দেখাতে পেরেছে? পোস্টটি তো অনেক আগে থেকেই ছিল। তাহলে ফলাফল বের হওয়ার পর কেন সেটি নিয়ে আলোচনা? অথেনটিক কোনো প্রমাণ নেই। আর আমি তো বলিনি, ছেলেটাকে চিনি না। তাহলে এটি নিয়ে সমালোচনার কী আছে? আমার মনে হয় প্রতিযোগিতার কিছু প্রতিযোগী এটি উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে ছড়াচ্ছে।’

রিলেশনশিপের স্ট্যাটাসটি সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘তখন বেশ কিছু ছেলে আমাকে খুব বিরক্ত করত। ওরা যাতে আমাকে বিরক্ত না করে সেকারণেই ওই পোস্টটি দিয়েছিল। এটা জানানোর জন্য যে, আমার স্বামী আছে, কেউ যেন আমাকে বিরক্ত না করে। আসলে এখনও আমরা বিয়ে করিনি। পড়াশোনা শেষ করে বিয়ের কমিটমেন্ট করেছিলাম আমরা। অনেকে ফেসবুকে ফেইক নিউজটি ছড়াচ্ছে। আমার সঙ্গে কথা না বলেই অনেকে নিউজটি করছে। এটা কাম্য নয়। এমনকি বিষয়টি নিয়ে আয়োজকদের যে বক্তব্য প্রচার হচ্ছে, সেটিরও কোনো ভিত্তি নেই।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *